সোমবার, ২১ ফেব্রুয়ারী, ২০২২

পৃথিবীর শীর্ষ ৫ মোটা নারী।

প্রথমে ভিডিও টি দেখে নিতে পারেনঃ 

এই পৃথিবীতে বিভিন্ন ধরণের নারী আছে কিন্তু আপনি কতজনকেই বা দেখেছেন। পৃথিবীতে এমনও নারী আছে যাদের দেখা আপনার জন্য  ভাগ্যের ব্যাপার। আজকের এই ভিডিওতে পৃথিবীর শীর্ষ ৫ মোটা নারী সাথে পরিচয় করিয়ে দিব যাদের ওজন জানলে আপনার চোখ দুটো ছানাবড়া হয়ে যাবে। তাদের শারীরিক ওজন এবং দৈহিক গড়ন দেখলে আপনি অবাক না হয়ে পারবেন না। তো চলুন এমন ৫ জন মোটা নারীদের দেখে নিই। 
পৃথিবীর শীর্ষ ৫ মোটা নারী।

১। ক্যারল ইয়াগার (1,200 পাউন্ড)।

ক্যারল ইয়াগার একজন মার্কিন নাগরিক ছিলেন। তিনি1960 সালে জন্মগ্রহণ করেছিলেন ৷ ক্যারল ইতিহাসে রেকর্ড করা সবচেয়ে ভারী মহিলা ছিলেন, যার সর্বোচ্চ ওজন 1200 পাউন্ড ছিল, এমন একটি রেকর্ড যা বিশ্বের অন্য কোনও মহিলা এখনও ভাঙতে পারেনি৷ । ক্যারল অস্ত্রোপচার পদ্ধতির সাহায্য ছাড়াই মাত্র তিন মাসে 520 পাউন্ডের বেশি কমিয়েছিল।
 

 ২। এনড্রেস মরেনোঃ  

এনড্রেস মরেনো বয়স ৩৭ বছর। মেক্সিকোর অব্রেগন শহরে থাকেন তিনি। যুক্তরাষ্ট্রের অনলাইন সংবাদমাধ্যম ডেইলিমেইল জানায়, তিনি পৃথিবীর সবচেয়ে মোটা মহিলা হিসেবে ইতোমধ্যে রেকর্ড গড়েছেন। তার ওজন প্রায় ৯৬০ পাউন্ড। গিনিস বুক রেকর্ডে নিজের নাম লেখানোর জন্যই তার এই মোটা হওয়া। কিন্ত এই অতিরিক্ত ওজনই এখন তার কাছে যন্ত্রনার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।ইনি বিশ্বের সবচেয়ে মোটা মহিলা; তবে দিনে ৭ বার সহবাস না করে থাকতে পারেন না।  
 

৩। ইমান আহমেদ আবদুলাটি

বিশ্বের সবচেয়ে স্থুল মোটা নারীর নাম ইমান আহমেদ আবদুলাটি। ৩৬ বছর বয়সী এই নারী মিশরের বাসিন্দা। গত ২৫ বছর বাড়ির বাইরে না যাওয়া এই নারীর দেহের ওজন ৫০০ কেজিরও বেশি। বর্তমানে তার অবস্থা আশঙ্কাজনক। এমনকি বাথরুমে যেতে হলেও কারও সাহায্য তার প্রয়োজন হয়। পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, জন্মের সময় ইমানের ওজন ছিল ৫ কেজি। মাত্র ১১ বছর বয়সে তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হন। তারপরেই দেহের অতিরিক্ত ওজন বেড়ে যাওয়ার ফলে শয্যাশায়ী হয়ে পড়েন তিনি। 

৪। ডোনা সিম্পসন

Donna Simpson ১৯৬৭ সালে আমেরিকায় জন্মগ্রহণ করেন এবং তিনি পৃথিবীর সবচাইতে মোটা মহিলা হিসেবে পরিচিত। তবে তিনি তার এই অধিক ওজন নিয়ে ছিলেন বেশ গর্বিত। ওজন ১০০০পাউন্ড পর্যন্ত নিয়ে যেতে চাইতেন তিনি। ২০০৮ সালে Donna Simpson এর ওজন ছিল ৬৩০ পাউন্ড কিন্তু ২০১০ সালে তা কমে দাঁড়ায় ৬০২ পাউন্ড। কিন্তু ২০১১ Donna Simpson তার শরীর কমানোর জন্য উঠে পড়ে লাগেন এবং তার ওজন কমে দাঁড়ায় ৩৭০ পাউন্ড।

৫। পলিন পটার  

পলিন পটার জীবিত সবচেয়ে ভারী মহিলার জন্য সর্বশেষ বিশ্ব রেকর্ডধারীদের একজন। যাইহোক, পটার সেই খেতাব অর্জন করার পরে, তিনি অবিলম্বে সিদ্ধান্ত নেন যে তিনি আরও সক্রিয় জীবনধারা গ্রহণ করতে চান। পটার, যিনি ক্যালিফোর্নিয়ার স্যাক্রামেন্টোতে বসবাস করেন, তার ওজন ছিল 643 পাউন্ড।

শেয়ার করুন

Author:

আমি একজন অতি সামান্য মানুষ। পেশায় একজন লেখক,ব্লগার এবং ইউটিউবার। লেখালেখি করতে খুব ভালো লাগে। আমার এই সামান্য প্রয়াসের মাধ্যমে মানুষের কিছু শেখাতে পারা ও বিনোদন দেওয়ার মাধ্যমে আনন্দ খুঁজে পায়।

0 coment rios: